Home সম্পাদকীয় ডিজিটাল পূর্বধলা বিনির্মাণে আরবান এর পথচলা

ডিজিটাল পূর্বধলা বিনির্মাণে আরবান এর পথচলা

সৈয়দ আরিফুজ্জামান: ‘ডিজিটাল বাংলাদেশ হবে বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা’। ১২ ডিসেম্বর, ডিজিটাল বাংলাদেশ দিবস। প্রথমবারের মতো নানান আয়োজনের মধ্য দিয়ে দেশব্যাপী পালিত হলো দিবসটি। সমৃদ্ধ জাতি গঠনে সকলকে উৎসাহিত করতে নানান আয়োজনে সরকার গুরুত্বের সাথে দিবসটি পালন করে থাকে। ২০০৯ সালে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণে ঘোষণা করে রূপকল্প-২০২১। তথ্য ও জ্ঞানভিত্তিক সমাজ বিনির্মাণের অঙ্গীকার নিয়ে প্রতিষ্ঠিত ‘একটিভিটি ফর রিফরমেশন অব বেসিক নীডস-আরবান’ সরকারের সহায়ক শক্তি হিসেবে ডিজিটাল পূর্বধলা বিনির্মাণে ব্যাপক আঙ্গিকে প্রযুক্তিভিত্তিক কার্যক্রম বাস্তবায়নের উদ্যোগ গ্রহণ করে।
তথ্য ও সেবা কেন্দ্র
আরবান ২০০৭ সালে মাইক্রোসফ্ট এর ক্লিক প্রকল্পের আওতায় এবং ডিনেটের সার্বিক সহযোগিতায় নেত্রকোনা জেলার পূর্বধলা উপজেলায় সাধারন জনগনকে প্রযুক্তিভিত্তিক সেবা প্রদানের লক্ষ্যে একটি তথ্য ও সেবা কেন্দ্র চালু করে। কম্পিউটার ও ইন্টারনেট প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে সেবা কেন্দ্রে এসে প্রশিক্ষিত তথ্যকর্মীর সাহায্যে যেকোন মানুষ সহজেই প্রয়োজনীয় সেবা গ্রহণের সুযোগ পায়। তথ্যকেন্দ্রে সংরক্ষিত তথ্য ভান্ডার ও বিভিন্ন ওয়েবসাইটের লিংকের সহায়তায় সহজেই সেবা প্রদান করে থাকে।
কম্পিউটার প্রশিক্ষণ কেন্দ্র; আরবান আইটি
শিক্ষিত ছেলে-মেয়ে বিশেষ করে যুব সম্প্রদায়কে কম্পিউটার শিক্ষায় প্রশিক্ষিত করার উদ্যোগ হিসেবে আরবান ২০০৭ সাল থেকে পূর্বধলায় কম্পিউটার প্রশিক্ষণ কার্যক্রম শুরু করে। ২০১০ সালে আরবান আইটি বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ড এর অধিভূক্ত প্রতিষ্ঠান হিসেবে তিন মাস ও ছয় মাসব্যাপী তিনটি ট্রেড কোর্স চালু করে। প্রতিবছর আরবান কম্পিউটার প্রশিক্ষণ কেন্দ্র থেকে প্রায় পাঁচ শত জন যুবক-যুবতী প্রশিক্ষণ গ্রহণ করে থাকে। আরবান আইটি পরিচালিত কোর্স সমূহের মধ্যে কম্পিউটার অফিস এ্যাপ্লিকেশন, ডাটাবেজ প্রোগ্রামিং, হার্ডওয়্যার এন্ড নেটওয়ার্কিং, গ্রাফিক্স ডিজাইন ও আউট সোর্সিং অন্যতম। আরবান কম্পিউটার প্রশিক্ষণ কেন্দ্র থেকে বিগত এক দশকে পাঁচ হাজার জনের অধিক শিক্ষার্থী সাফল্যের সাথে বিভিন্ন কোর্স সম্পন্ন করে।
মোবাইল লেডী
তৃণমূল পর্যায়ে বিশেষ করে গ্রামের সুবিধা বঞ্চিত নারী, কিশোরী, যুবতী, কৃষকসহ সাধারণ জনগনকে প্রয়োজনীয় সেবা দোরগোড়ায় পৌঁছে দিতে আরবান পরিচালিত মোবাইললেডী কার্যক্রম অনন্য একটি উদ্যোগ। মোবাইললেডী প্রযুক্তিজ্ঞানে দক্ষ এমন এক জন নারী কর্মী। যিনি বাড়ি বাড়ি গিয়ে কৃষি, স্বাস্থ্য, শিক্ষাসহ বিভিন্ন সেবা প্রদান করেন। মাঠ পর্যায়ে মোবাইললেডী একটি মোবাইল ফোন ও অফিসে ইন্টারনেট সংযোগসহ কম্পিউটারের সহায়তায় বিভিন্ন ধরনের সেবা প্রদান করেন। ২০০৭ সাল থেকে ২০১০ সাল পর্যন্ত ডিনেট এর সার্বিক সহায়তায় কার্যক্রমটি বাস্তবায়িত হয়।
তথ্যকল্যাণী
নারী উদ্যোক্তা হিসেবে তথ্যকল্যাণী ডিনেট উদ্ভাবিত একটি সফল মডেল। ২০১০ সালে সর্বপ্রথম পূর্বধলাসহ দেশের দুটি স্থানে তথ্যকল্যাণী কার্যক্রম শুরু হয়। তথ্যকল্যাণী গ্রামীণ পর্যায়ে নারীদের প্রযুক্তিভিত্তিক আত্মকর্মসংস্থানমূলক একটি স্বাধীন পেশা। ল্যাপটপ, ডিজিটাল ক্যামেরা, সার্বক্ষণিক ইন্টারনেট সংযোগ, ফাষ্ট এইড বক্স তথ্যকল্যাণী কাজে অন্যতম সহায়ক উপকরণ। সাইকেল চালিয়ে গ্রামে বাড়ি বাড়ি গিয়ে বিশেষকরে নারী, স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীসহ নানান শ্রেণী-পেশার মানুষকে তথ্য অধিকার বাস্তবায়নে সহায়তা, ভোগ্যপণ্য বাজারজাতকরণ ও প্রযুক্তিভিত্তিক সেবা প্রদান তথ্যকল্যাণীর আয়ের অন্যতম উৎস।
ই-স্বাস্থ্য সেবা; মোবাইল সল্যুশন
আরবান ২০১২ সাল থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত গ্রামীণ-ইন্টেল ও ইউএসএইড এর অর্থায়ন এবং ডিনেট এর সহযোগিতায় নেত্রকোনা সদর ও পূর্বধলা উপজেলায় প্রসূতি মায়ের নিরাপদ সন্তান প্রসব ও নবজাতক শিশুর স্বাস্থ্য সুরক্ষায় “সুমাতা” ও “মামা” নামে দুটি প্রকল্পের আওতায় ই-স্বাস্থ্য সেবা কার্যক্রম বাস্তবায়ন করে। নিবন্ধিত প্রসূতি মা গর্ভধারনের পর থেকে বিনামূল্যে প্রতি সপ্তাহে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের কাছ থেকে নারী স্বাস্থ্যকর্মীর মাধ্যমে প্রয়োজনীয় ক্ষুদে স্বাস্থ্য বার্তা সম্বলিত মোবাইল এসএমএস, রোগীদের অনলাইনে চিকিৎসকদের সাথে যুক্ত করা, বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের সাথে স্বাস্থ্য কর্মীর ই-মেইল যোগাযোগ, সরাসরি চিকিৎসকের নিকট থেকে ব্যবস্থাপত্র গ্রহণ ও জরুরী প্রয়োজনে চিকিৎসকের মাঠ পর্যায়ে পরিদর্শনের মাধ্যমে সেবা প্রদান করে থাকেন।
আইসিটি এ্যান্ড ইংলিশ ক্লাব
আরবান পূর্বধলায় স্কুল পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের প্রযুক্তিজ্ঞান বৃদ্ধি ও ইংরেজিতে কথা বলার দক্ষতা বাড়ানোর জন্য বৃটিশ কাউন্সিলের সার্বিক তত্বাবধান ও ডিনেট এর সহায়তায় ২০১৩ সালে ষষ্ঠ থেকে দশম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের নিয়ে আইসিটি এ্যান্ড ইংলিশ ক্লাব চালু করে। এই ক্লাবে শিক্ষার্থীরা স্কুল ছুটির পর শ্রেণী ভিত্তিক দলে গঠন করে আরবান প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে বিষয়ভিত্তিক সেশনে অংশগ্রহণ করে। এতে স্কুল পড়ুয়া ছেলে-মেয়েদের জড়তাহীনভাবে ইংরেজিতে কথা বলা ও স্বচ্ছন্দে কম্পিউটার চালানোর দক্ষতা বৃদ্ধি পায়।
ইনফো-প্যাডলার
মাঠপর্যায়ে প্রযুক্তিভিত্তিক প্রয়োজনীয় সেবা সহজ ও ফলপ্রসূ করতে ইনফো-প্যাডলার আরবান উদ্ভাবিত একটি মডেল। আরবান বিগত সময়ে মাঠ পর্যায়ে নানানমাত্রিক প্রযুক্তি সেবা প্রদানের অভিজ্ঞতার আলোকে তৃণমূল পর্যায়ে শিক্ষা, স্বাস্থ্য, কৃষি ও গবেষণাধর্মী কার্যক্রমের সফল বাস্তবায়নের জন্য দক্ষ ও প্রশিক্ষিত নারী কর্মীর আবশ্যকতা বিশেষভাবে অনুধাবন করে। যার প্রেক্ষিতে ২০১৬ সালে আরবান ইনফো-প্যাডলার মডেলটি উদ্ভাবন করে।
ইনফো-প্যাডলার প্রযুক্তিজ্ঞানে দক্ষ ও প্রযুক্তি উপকরণ ব্যবহারে পারদর্শী। যারা সকল ধরনের মোবাইল এ্যাপ্লিকেশন ও ওয়েব পোর্টালের সহায়তায় বহুমাত্রিক ই-সেবা প্রদান করে প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর জীবনমান উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে। বিভিন্ন ধরনের অনলাইন ও অফলাইন ভিত্তিক জরিপ পরিচালনা ও গবেষনার কাজে ড্যাটা সংগ্রহ ইনফো-প্যাডলারদের সক্ষমতার অন্যতম একটি সবল দিক। ইতোমধ্যে আরবান ইনফো-প্যাডলার মডেল যুক্তরাজ্যভিত্তিক গবেষনা প্রতিষ্ঠান সিফাস ও এ্যাক্সিটার বিশ্ববিদ্যালয়ের সাথে দুটি গবেষণা কার্যক্রম বাস্তবায়নের মাধ্যমে চিংড়ি ও মাছ চাষীদের প্রয়োজনীয় ড্যাটা সংগ্রহে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে।
বাংলাদেশ টেলিসেন্টার নেটওয়্যার্ক
দেশের সর্বত্র প্রযুক্তিভিত্তিক তথ্য ও সেবা সমূহ পরিচিত ও সাধারণ জনগনের সেবা প্রাপ্তি সহজ করার জন্য বাংলাদেশ টেলিসেন্টার নেটওয়্যার্ক জেলা পর্যায়ে একটি করে হাব স্থাপনের যে উদ্যোগ গ্রহণ করে এর অংশ হিসেবে ২০১৩ সালে আরবান নেত্রকোনা জেলার টেলিসেন্টার হাব হিসেবে দায়িত্বপ্রাপ্ত হয়। আরবান হাব নেত্রকোনাসহ বৃহত্তর ময়মনসিংহ অঞ্চলে প্রযুক্তিভিত্তিক সেবা প্রদানে নিয়োজিত বেশ কিছু প্রতিষ্ঠান, সিবিও এবং উদ্যোক্তাদের টেলিসেন্টার পরিচালনায় দক্ষতা উন্নয়ন প্রশিক্ষণ প্রদান করে থাকে।
জব-প্লেসমেন্ট
আরবান দীর্ঘদিন যাবত পূর্বধলায় প্রযুক্তিজ্ঞানে দক্ষ মানবসম্পদ তৈরিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখে যাচ্ছে। প্রতিষ্ঠানটি শুধুমাত্র যুবক-যুবতীদের দক্ষতা উন্নয়ন প্রশিক্ষণ প্রদানের মধ্যেই কার্যক্রম সীমাবদ্ধ রাখছেনা। প্রশিক্ষণ প্রদানের পর প্রশিক্ষিত জনবলকে সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে কাজ করে থাকে। আরবান ইতোমধ্যে প্রশিক্ষিত জনবলের কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে নিয়োগকারী বেশ কিছু প্রতিষ্ঠানের সাথে চুক্তিবব্ধ হয়। যার মধ্যে নেত্রকোনা জেলার পূর্বধলা উপজেলার সার্ভার সেন্টারের জন্য প্রযু্িক্তজ্ঞানে দক্ষ জনবল সরবরাহের চুক্তিটি বিশেষভাবে উল্লেখযোগ্য।
কানেকটিং বাংলাদেশ
প্রযুক্তির সহায়তায় দেশের বৃহৎ জনগোষ্ঠীকে সেবার আওতায় আনা বিশেষকরে বিভিন্ন পর্যায়ের বিশেষজ্ঞ ব্যক্তিদের গ্রামের সেবা গ্রহীতাদের সাথে যুক্ত করার লক্ষ্যে এটিএন নিউজ ডিনেটের সাথে যৌথ উদ্যোগে কানেকটিং বাংলাদেশ নামে একটি টেলিভিশন প্রোগ্রাম হাতে নেয়। এটিএন নিউজের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা প্রয়াত মিশুক মুনিরের সার্বিক ব্যবস্থাপনায় ও খ্যাতিমান সাংবাদিক মুন্নী সাহার উপস্থাপনায় কানেকটিং বাংলাদেশের যাত্রা শুরু হয় আরবান এর কর্ম এলাকা পূর্বধলায় আরবানের তথ্যকল্যণীদের হাত ধরে। অনুষ্ঠানটির মাধ্যমে গ্রামের একজন সেবা গ্রহীতা দেশের যেকোন প্রান্তের এক জন বিশেষজ্ঞ ডাক্তার, কৃষিবীদ বা অন্য কোন বিশেষজ্ঞের পরামর্শ গ্রহণের সুযোগ নিয়ে থাকেন।
নবধারা শিক্ষা
খ্যাতিমান প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান ইনটেল বাংলাদেশের সার্বিক পৃষ্ঠপোষকতায় ও ডিনেটের সহায়তায় নবধারা শিক্ষা প্রযুক্তির প্রতি সাধারণ শিক্ষার্থীদের মনোযোগী ও প্রযুক্তি ব্যবহারের প্রতি আগ্রহী করে তুলতে বেশ কার্যকর একটি কর্মসূচি। এই কার্যক্রমের আওতায় আরবান নেত্রকোনা জেলার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীদের নিয়ে ২০১০ সালে রচনা ও কুইস প্রতিযোগিতা, গল্প বলা ও গুণীজন আড্ডাসহ বিভিন্ন ধরনের শিক্ষামূলক কার্যক্রম আয়োজন করে থাকে। এছাড়াও স্কুল ক্যাম্পেইন, রোডশোর মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের আকৃষ্ট করতে ব্যাপক উদ্যোগ নেয়া হয়।
শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সোলার বেইজড কম্পিউটার ল্যাব স্থাপন
দেশের প্রত্যন্ত গ্রাম যেখানে কিছুদিন পূর্বেও বিদ্যুৎ ছিলনা এমন গ্রামের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ডিজিটাল শিক্ষা ব্যবস্থা বাস্তবায়ন ছিল একটি দূরুহ কাজ। নেত্রকোনা জেলার পূর্বধলা উপজেলায় তেনুয়া এমন একটি গ্রাম যেখানে ২০১২ সাল পর্যন্ত বিদ্যুৎ পৌছায়নি। সেই গ্রামের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান তেনুয়া উচ্চ বিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীরা প্রযুক্তি ভিত্তিক শিক্ষা প্রদানে ইনটেলের অর্থায়নে ও ডিনেট এর সহায়তায় আরবান ২০১২ সালে ১০ টি ল্যাপটপ দিয়ে সৌর বিদ্যুৎয়ায়িত একটি ল্যাব স্থাপন করে। আরবান সহায়তায় প্রযুক্তিভিত্তিক শিক্ষা বিস্তারের অনন্য উদ্যোগটি পূর্বধলায় ডিজিটাল শিক্ষা বিস্তারে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখে।
বাংলাদেশ ব্যাংকের এ্যাক্রিডিটেশন
পূনঃঅর্থায়ন প্রকল্পের আওতায় দেশব্যাপী নতুন উদ্যোক্তা তৈরির কার্যক্রমের অংশ হিসেবে প্রযুক্তি জ্ঞানে পারদর্শী উদ্যোক্তা তৈরির জন্য ২০১৬ সাল থেকে ২০১৮ সাল পর্যন্ত তিন বছরের জন্য আরবান বাংলাদেশ ব্যাংকের এসএমই ডিভিশন থেকে এ্যাক্রিডিটেশন লাভ করে। এই প্রকল্পের আওয়তায় আরবান যুবসম্প্রদায়কে প্রযুক্তিজ্ঞানে পারদর্শী করে গড়ে তুলতে দক্ষতা উন্নয়ন প্রশিক্ষণ প্রদান করে। সফলভাবে প্রশিক্ষণ সম্পন্নকারীদের পূনঃঅর্থায়ন প্রকল্পের আওতায় ব্যাংক সমূহ নতুন উদ্যোক্তা হিসেবে গড়ে তুলতে সহজ শর্তে ঋণ প্রদান করে থাকে।
ডিজিটাল এ্যাপ্লিকেশন তৈরি
বর্তমান প্রযুক্তিভিত্তিক বিশ্বব্যবস্থায় বাংলাদেশেরও নিজস্ব সক্ষমতা বৃদ্ধিতে ওয়েব ও মোবাইল বেইজড বিভিন্ন ধরনের এ্যাপ্লিকেশন তৈরিতে অগ্রগতি হচ্ছে। আরবান বিভিন্ন দাতা ও সহযোগী সংস্থা, বিশ্ববিদ্যালয়, গবেষণা প্রতিষ্ঠানের সাথে দীর্ঘ দিন যাবত বহুমাত্রিক কার্যক্রম বাস্তবায়নের অংশ হিসেবে ওয়েব পোর্টালসহ ডিজিটাল এ্যাপ্লিকেশন তৈরিতে মনোযোগী। আরবান ইতোমধ্যে বাগদা-গলদা চিংড়ি চাষে রোগ নির্ণয়ের জন্য FARMS, পাঙ্গাস ও তেলাপিয়া চাষে রোগ নির্ণয়ের জন্য DNA এবং আফ্রিকার দেশ মালাভীতে ওয়ার্ল্ডফিস এর মাছ চাষের ড্যাটা সংগ্রহে তিনটি মোবাইল এ্যাপ্লিকেশন প্রস্তুত করে।
ডিজিটাল শিক্ষা; আরবান একাডেমি
প্রযুক্তিভিত্তিক আধুনিক শিক্ষায় জ্ঞানসমৃদ্ধ সমাজ বিনির্মাণের অঙ্গীকার নিয়ে ২০১১ সালে নেত্রকোনা জেলার পূর্বধলা উপজেলায় সম্পূর্ণ বেসরকারি উদ্যোগে প্রতিষ্ঠিত হয় নতুন ধারার শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আরবান একাডেমি। ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণ ও শিক্ষার ডিজিটাল রূপান্তরের অংশ হিসেবে আরবান একাডেমি ২০১৫ সালে ২৮ ডিসেম্বর প্রথম শ্রেণির ৪০ জন শিক্ষার্থীর হাতে তুলে দেয় শিক্ষার অন্যতম আধুনিক উপকরণ মিনি ল্যাপটপ। বর্তমানে প্রতিষ্ঠানটিতে প্লে-গ্রুপ থেকে অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত প্রায় চার শত শিক্ষার্থী অধ্যয়নরত।
ই-হাট
ই-হাট ব্র্যাকনেট উদ্ভাবিত তৃণমূলে প্রযুক্তিভিত্তিক সেবা প্রদানে একটি কার্যকর মডেল। স্থায়ীত্বশীল ই-সেবা অব্যাহত রাখা ও প্রতিষ্ঠানের দক্ষ মানব সম্পদ গঠনে সহায়তা প্রাপ্তিতে আরবান ২০১৫ সালে ব্র্যাকনেট এর সাথে এক সমঝোতা স্বারক সম্পাদন করে। অভিজ্ঞতা বিনিময়ে বাস্তবায়িত সফল মডেল পরিদর্শন, নিয়মিত প্রশিক্ষণ ও কারিগরি সহায়তা প্রাপ্তির মাধ্যমে আরবান এর জন্য ই-হাট উদ্যোগটি নিজস্ব জনবলের দক্ষতা বৃদ্ধি ও প্রাতিষ্ঠানিক সক্ষমতা অর্জনের মাধ্যমে সংগঠনকে শক্তিশালী করণে সহায়ক ভূমিকা পালন করে থাকে।
অনলাইন গণমাধ্যম; আজকের আরবান ডট কম
পূর্বধলা থেকে প্রকাশিত আজকের আরবান ডট কম আরবানের উদ্যোগে স্থানীয়, আঞ্চলিক, জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পরিমন্ডলের উন্নয়ন ও শিক্ষামূলক তথ্য ও সংবাদ প্রচারের অনলাইন ভিত্তিক একটি নিউজ পোর্টাল। “স্বপ্ন দেখি আকাশ ছোঁয়ার” স্লোগানকে মননে ধারণ করে শিল্প-সংস্কৃতি, শিক্ষা, কৃষি, প্রাকৃতিক সম্পদ, ঐতিহ্য, জনবান্ধব সরকারি-বেসরকারি উদ্যোগ, সম্ভাবনা, সামগ্রিক উন্নয়নে রাজনৈতিক দর্শন ও রাষ্ট্রীয় ভাবনা, প্রযুক্তি ও তরুণ সমাজ, নারী উদ্যোগ, খেলা-ধুলা, আন্তর্জাতিক প্রেক্ষাপট আর ঐতিহাসিক ঘটনাসহ নানান বিষয়ে বিশ্লেষণধর্মী সংবাদ প্রচারের জন্য অনলাইন ভিত্তিক নিউজ মিডিয়া হিসেবে আত্মপ্রকাশ করে আজকের আরবান ডট কম।
দেশের বাইরে আরবান এর মডেল বাস্তবায়ন
দেশের গন্ডির ভেতর আরবানের কাজে নতুনত্ব ও অভিনবত্ব থাকার কারনে অনেক দাতা ও সহযোগী প্রতিষ্ঠানের কাছে তা গুরুত্বের সাথে বিবেচিত হয়ে থাকে। আরবান এর ইনফো-প্যাডলার মডেল মোবাইল এ্যাপ্লিকেশন ব্যবহার করে ইতোমধ্যে গবেষণা কাজে সাফল্য পাওয়ায় তা অনুসরণ করে আফ্রিকার দেশ মালাভীতে ড্যাটা সংগ্রহের একটি প্রকল্প বাস্তবায়নের উদ্যোগ নেয় আন্তর্জাতিক গবেষণা প্রতিষ্ঠান ওয়ার্ল্ডফিস। আরবান এর মোবাইল এ্যাপ্লিকেশন প্রস্তুতিতে নিয়জিত টীম ইতোমধ্যে মালাভী পরিদর্শন করে সেখানকার জন্য একটি মোবাইল এ্যাপ তৈরি করে মাঠ পর্যায়ে কার্যক্রম বাস্তবায়ন করে।
আরবান ডিজিটাল পূর্বধলা বিনির্মাণের কার্যক্রমকে বেগবান করার লক্ষ্যে দক্ষ মানবসম্পদ তৈরি ও নাগরিকদের প্রযুক্তিভিত্তিক উন্নত সেবা প্রাপ্তির সুযোগ সৃষ্টিতে বিগত এক দশক যাবত কর্ম এলাকায় কারিগরি প্রশিক্ষণসহ নানানমাত্রিক কর্মসূচি বাস্তবায়ন করে যাচ্ছে। যার ফলোশ্রুতিতে প্রযুক্তিভিত্তিক কার্যক্রম বাস্তবায়নে সাফল্যের জন্য আরবান ইতোমধ্যে লাভকরে আঞ্চলিক, জাতীয় ও আন্তর্জাতিক বেশ কিছু সম্মানজনক পুরস্কার। প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক গণমাধ্যমে প্রচারিত হয়ে গুরুত্বপূর্ণ অনেক প্রতিবেদন।

 

           লেখক: নির্বাহী পরিচালক, আরবান

Print Friendly, PDF & Email
syed arifuzzamanhttp://www.arban.org.bd/
Md. Syed Arifuzzaman working as social worker and founder of Arban-Activity for the reformation of basic needs. My goal to help underprivileged people to aware about good health, quality education and importance of technical education.

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- বিজ্ঞাপন-

জনপ্রিয় সংবাদ

ডাঃ আইরিন জামান এর মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেন আলোকিত চন্দনাইশ পরিবার 

মোহাম্মদ শাহাদাত হোসেন সিকদার, রাঙামাটি সদর প্রতিনিধি : আজ ১৪/০৭/২০২০খ্রিঃ রোজ (মঙ্গলবার) চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতালের গাইনী এন্ড অবস্ বিভাগের রেজিস্টার ও...

আটপাড়ায় বন্যা পরিস্থিতি

মোঃ রাশেদুল হাবিব ভূঁইয়া ইকবাল, আটপাড়া নেত্রকোনা প্রতিনিধি : নেত্রকোনার আটপাড়ায় তিনটি ইউনিয়নে প্রায় সবগুলো গ্রাম বন্যায় প্লাবিত।উপজেলা সাতটি  ইউনিয়নের মধ্যে শুনই,...

তজুমদ্দিনে নৌবাহিনীর উদ্যোগে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ 

মো: আইয়্যুব আলী, তজুমদ্দিন  প্রতিনিধি : ভোলার তজুমদ্দিন উপজেলায় অসহায় ও দুস্থদের মাঝে বিভিন্ন স্থানে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করেন বাংলাদেশ নৌবাহিনী।মঙ্গলবার বেলা...

মুন্সীগঞ্জ  মহিলা পরিষদ এর উদ্যোগে করোনায় মৃত মহিলাদের জন্য গোসলের কমিটি গঠন 

মো: লিটন মাহমুদ, মুন্সীগঞ্জ  প্র‌তি‌নি‌ধি : মুন্সীগঞ্জ   সদর উপ‌জেলায় মুন্সীগঞ্জ  মহিলা পরিষদ এর উদ্যোগে করোনায় আক্রান্ত হয়ে কন্যা সন্তান ও মহিলারা মারা...

মতামত

Print Friendly, PDF & Email